সংবাদ শিরোনাম :
বাংলাদেশের পতাকার আদলে তৈরি বিকিনি-হাফপ্যান্ট বিক্রি হচ্ছে অ্যামাজনে! ধর্ষককে সৌদি থেকে ধরে আনছেন ভারতীয় পুলিশ কমিশনার মেরিন স্বামীকে নিয়ে খাজা বাবার দরবারে নুসরাত, সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় বন্যা থেকে বাঁচতে গ্রামের এক বাড়ির বিছানায় ঠাঁই নিল বাঘ! পরীক্ষার ফাঁকেই আধঘণ্টার ব্রেক নিয়ে সন্তান জন্ম দিলেন তরুণী ‘পীর’কে জমি দিলেই মিলবে বেহেস্তের টিকিট! মেয়ের কিছু হলে আমি আত্মহত্যা করবো: মিন্নির বাবা প্রিয়া সাহার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতেই হবে: কাদের দেশে ফিরলেই প্রিয়া সাহাকে জিজ্ঞাসাবাদ: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বন্যা কবলিত ৮ লাখ মানুষের দুর্ভোগ চরমে, বন্যায় এ পর্যন্ত ১২ জনের মৃত্যু
হবিগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা: আরও একজনের স্বীকারোক্তি

হবিগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা: আরও একজনের স্বীকারোক্তি

হবিগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা: আরও একজনের স্বীকারোক্তি
হবিগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রীকে হত্যা: আরও একজনের স্বীকারোক্তি

নিজস্ব প্রতিনিধি, হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জ সদর উপজেলার পইল ইউনিয়নের নাজিরপুর গ্রামের সৌদি প্রবাসীর স্ত্রী সাজেরা খাতুন হত্যা মামলার আটক অন্যতম আসামী ঘাতক আব্দুর রউফ (২৫) আদালতে লোমহর্ষক স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আরেক হত্যাকারীকে আটক করেছে।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাতে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রবিউল ইসলাম, সদর থানার ওসি মুহাম্মদ সহিদুর রহমান, তদন্ত ওসি জিয়াউর রহমান এবং মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পলাশ চন্দ্র দাসের নেতৃত্বে একদল পুলিশ অভিযান চালিয়ে নাজিরপুর গ্রামে থেকে হত্যাকান্ডের মূল হোতা আব্দুর রউফের সহযোগী জাহাঙ্গীর মিয়া (৩৫) কে আটক করে।

আটককৃত আসামী, সদর উপজেলার নাজিরপুর গ্রামের মৃত ফুল মিয়ার পুত্র।

সে ঘটনার সাথে জড়িত ছিল তা স্বীকার করে।

হত্যার কারণ হিসেবে জাহাঙ্গীর ও একই ধরনের কথা বলে।

ওই গ্রামের সৌদি প্রবাসী সঞ্জব আলীর স্ত্রী সাজেরা খাতুন (৫০) কে হত্যা করা হয়েছে এ ব্যাপারে পুলিশকে আব্দুর রউফ জানায়, আব্দুর রউফসহ আরও ৪/৫ জন যুবক ওই প্রবাসীর বাড়িতে চুরি করতে যায়। এ সময় প্রবাসীর পুত্রবধু বাড়িতে ছিল না। এক পর্যায়ে টাকা পয়সা ও স্বর্ণালঙ্কার চুরি করার সময় সাজেরা তাদের চিনে ফেলায় হাত-পা বেধে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে চলে যায়।

বুধবার (১২ জুন) সন্ধ্যায় আটককৃত জাহাঙ্গীর মিয়াকে হবিগঞ্জের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুল ইসলামের আদালতে হাজির করলে ১৬৪ ধারা জবানবন্দিতে হত্যা কথা স্বীকার করে উল্লেখিত বিষয়ে জবানবন্দি দেয়।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরও বলেন, শীঘ্রই আদালতে চার্জশীট দাখিল করা হবে। এছাড়া এই মামলার আরও অন্যান্য আসামীদের ধরতে পুলিশের একটি বিশেষ টিম অভিযানে অব্যাহত আছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ২১ সেপ্টেম্বর নিহত সাজেরা খাতুন হাত-পা ও মুখ কাপড় দিয়ে বাধা ছিল। অনেকে মনে করছেন জুয়ার টাকার জন্য দুর্বৃত্তরা ওই বাড়িতে চুরি করতে গিয়ে গৃহবধুকে হত্যা করেছে। তবে এ হত্যাকান্ড আমাদের কাছে রহস্যজনক ছিল।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24

Desing & Developed BY ThemesBazar.Com