মাহাথির কন্ঠে এখন ভিন্ন সুর, জাকির নায়েককে রাখতে চান না মালয়েশিয়ায়

মাহাথির কন্ঠে এখন ভিন্ন সুর, জাকির নায়েককে রাখতে চান না মালয়েশিয়ায়

মাহাথির কন্ঠে এখন ভিন্ন সুর, জাকির নায়েককে রাখতে চান না মালয়েশিয়ায়
মাহাথির কন্ঠে এখন ভিন্ন সুর, জাকির নায়েককে রাখতে চান না মালয়েশিয়ায়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- আলোচিত-সমালোচিত ভারতীয় ইসলাম ধর্মবিষয়ক বক্তা জাকির নায়েককে নিজেদের দেশে রাখতে চায় না মালয়েশিয়া। তাঁকে ‘অনাহূত অতিথি’ ও ‘কট্টর’ সম্বোধন করে দেশটির প্রধানমন্ত্রী মাহাথির।

মাহাথিরের মতে, যদিও মালয়েশিয়ায় জাকির নায়েক ছিলেন একজন অনাহূত অতিথি। কিন্তু তবুও এখন তাকে সে দেশ থেকে ফেরত পাঠাতে পারছে না মালয়েশিয়া সরকার।

টেলিভিশনের মাধ্যমে ধর্ম প্রচারকারী ৫৩ বছর বয়সী নায়েক ২০১৬ সালে ব্যাপক সমালোচনার মধ্যে ভারত ছেড়ে মালয়েশিয়ায় চলে যান। সেখানে তিনি স্থায়ীভাবে বসবাস করার অনুমতি পান।

তুরস্কের আন্তর্জাতিক নিউজ চ্যানেল টিআরটিকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ বলেন, যদিও জাকির নায়েকের চরমপন্থি মতবাদ মালয়েশিয়ার জাতিগত এবং ধর্মীয় সম্পর্কের ক্ষেত্রে হুমকি স্বরুপ তবুও তাকে সে দেশ থেকে বিতাড়িত করাটা খুবই কঠিন কাজ ছিল। কারণ অন্য কোন দেশই জাকির নায়েককে আশ্রয় দিতে চায় না।

তিনি আরও বলেন, মালয়েশিয়া বহু জাতি, বহু ধর্মের দেশ। আমরা চাই না যে, কেউ এখানে এসেছে কোন জাতি বা ধর্ম সম্পর্কে চরমপন্থি মতবাদ প্রকাশ করুক।

মালয়েশিয়ার নাগরিকত্ব পাওয়া এই ভারতীয় বংশোদ্ভূত বিতর্কিত ধর্ম প্রচারকের সম্পর্কে এক প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে মাহাথির বলেন, তবে অন্যদিকে তাকে বিশ্বের অন্য কোন দেশে ফেরত পাঠানোটাও কঠিন বিষয়। কারণ অন্য কোন দেশই তাকে আশ্রয় দিতে চায় না।

জাকির নায়েককে ‘অনাহূত অতিথি’ ও ‘কট্টর’ সম্বোধন করে দেশটির প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ বলেছেন, ‘অন্য কোনো দেশ জাকির নায়েককে নিতে চায় না বলেই তাঁকে আমাদের এখানে রাখতে হচ্ছে।’

এর আগে গত ১০ জুন বিতর্কিত ইসলামী বক্তা জাকির নায়েককে ভারতের কাছে হস্তান্তর না করার অধিকার মালয়েশিয়ার আছে বলে মন্তব্য করেছিলেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ।

ভারতে তিনি সুবিচার নাও পেতে পারেন, নায়েকের এমন আশঙ্কার কথা উল্লেখ করে মাহাথির ওই মন্তব্য করেন বলে স্টার সংবাদপত্রের বরাতে জানিয়েছে প্রেস ট্রাস্ট অব ইন্ডিয়া (পিটিআই) ।

“জাকির নায়েক অনুভব করছেন, তিনি সুবিচার পাবেন না,” মাহাথিরের উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি এমনটি বলেছেন বলে স্টার সংবাদপত্র জানিয়েছে। এই পরিস্থিতির সঙ্গে তিনি সাবেক পুলিশ কমান্ডো সিরুল আজহার উমরের ঘটনার তুলনা করেছেন।

মাহাথির বলেন, “সিরুলকে সমর্পণের জন্য অস্ট্রেলিয়াকে অনুরোধ করেছিলাম আমরা, কিন্তু আমরা তাকে ফাঁসিকাঠে পাঠাতে পারি ভেবে শঙ্কিত ছিল তারা (অস্ট্রেলিয়া) ।”

এদিকে, গত মঙ্গলবার এক বিবৃতি ৫৩ বছর বয়সী জাকির নায়েক বলেন, সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে তার কোন সম্পর্ক নেই। তিনি আরও বলেন, আন্তর্জাতিক পুলিশ সংস্থা ইন্টারপোলও তার বিরুদ্ধে রেড নোটিশ ইস্যু করতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। তিনি বলেন, এটা থেকেই প্রমাণ হয় যে, আমার বিরুদ্ধে করা ভারত সরকারের অভিযোগ কতটা দুর্বল।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com