বানিয়াচঙ্গে এক ইউপি চেয়ারম্যানকে শোকজ

বানিয়াচঙ্গে এক ইউপি চেয়ারম্যানকে শোকজ

বানিয়াচঙ্গে এক ইউপি চেয়ারম্যানকে শোকজ
বানিয়াচঙ্গে এক ইউপি চেয়ারম্যানকে শোকজ

বানিয়াচং (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি: হবিগঞ্জের  বানিয়াচং সদর ২নং উত্তর-পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ওয়ারিশ উদ্দিন খানকে শোকজ করেছে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়।

নিয়ম বহির্ভূতভাবে মহল্লার সর্দার নিযুক্ত হওয়ায় শোকজ করা হয় তাকে।

স্থানীয় সরকার বিভাগ মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো. ইফতেখার আহমেদ চৌধুরী ১৬৭ নং স্মারকে চেয়ারম্যানকে শোকজ করেন। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইডে শোকজপত্রটি বুধবার প্রকাশ করা হয়েছে।

জানা গেছে, পঞ্চায়েত বৈঠকে দাঙ্গাহাঙ্গামা সৃষ্টি করে চেয়ারম্যান ওয়ারিশ উদ্দিন খান কুতুবখানি, গরীব হোসেন ও আদমখানি এই তিন মহল্লার সর্দার নিযুক্ত হন। লিখিত কোনো নিয়ম না থাকায় মহল্লার জনসাধারণের সংরক্ষিত অর্থ তহবিল স্বেচ্ছাচারিতা হয়।

এ ব্যাপারে গরীব হোসেন মহল্লার রিয়াজ উদ্দিন সহ একাধিক ব্যক্তি ইউএনও বরাবরে লিখিত অভিযোগ করেন।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাব্বির আহমেদ আকুঞ্জির তদন্তে অভিযোগের প্রমাণ মিলেছে।

তদন্ত কর্মকর্তা এসিল্যান্ড সাব্বির আহমেদ আখুঞ্জি বলেন, চান্দ বা সর্দার প্রথা আইন সিদ্ধ নয়। কোনো চেয়ারম্যান তথা জনপ্রতিনিধিরা যেন বেআইনি প্রথায় সর্দার না হতে পারেন সে ব্যাপারে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেয়া যেতে পারে। তদন্ত প্রতিবেদনটি সুপারিশ আকারে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসকের নিকট প্রেরণ করেন ইউএনও মো.মামুন খন্দকার।

প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক ৯২ স্মারকে গত ২৫ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের ইউনিয়ন পরিষদ শাখা বরাবরে এক পত্র প্রেরণ করেন।

শোকজ নোটিশে বলা হয়, জনসাধারণের বিভিন্ন খাত হতে প্রাপ্ত অর্থ সংরক্ষণ এবং ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি নিয়ম বহির্ভূতভাবে তিন মহল্লার সর্দার হিসেবে জড়িত থাকায় কেন আপনার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না। এই মর্মে পত্রপ্রাপ্তির দশ কার্যদিবসের মধ্যে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার বিভাগে শোকজের জবাব প্রেরণে জন্য চেয়ারম্যানকে নিদের্শ দেয়া হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24

Desing & Developed BY ThemesBazar.Com