হবিগঞ্জে মাকে বেঁধে মেয়েকে ‘সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণ’

হবিগঞ্জে মাকে বেঁধে মেয়েকে ‘সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণ’

অনলাইন ডেস্ক: হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলায় এক নারীকে বেঁধে রেখে তার মেয়েকে সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ শনিবার ভোরে উপজেলার গাজীপুর ইউনিয়নের মানিক ভাণ্ডার গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার পর ওই নারী ও তার মেয়েকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক দেবাশীষ রায় বলেন, ধর্ষণের অভিযোগে এক তরুণীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার গায়ে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে কিনা তা পরীক্ষার পর বোঝা যাবে। ওই পরিবারের অভিযোগ, বেশ কিছু দিন ধরে একই গ্রামের মিজান মিয়া ও ফজলুল হক মেয়েটিকে বিভিন্নভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছে। তারা বেশ কয়েকবার তাকে কুপ্রস্তাবও দিয়েছেন।

শুক্রবার রাতে মেয়েটির বাবা বাড়িতে ছিলেন না। এই সুযোগে মিজান ও ফজুল হকসহ বেশ কয়েকজন তাদের ঘরে প্রবেশ হাত, পা বেঁধে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় তার চিৎকারে মা এগিয়ে এলে তারা তাকে মারধর করে বেঁধে পাশের একটি কক্ষে আটকে রেখে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। বিষয়টি জানতে পেরে স্থানীয় লোকজন তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ ব্যাপারে চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)আজিমুজ্জামান বলেন, মেয়েটির পরিবারর সঙ্গে জমি নিয়ে বিরোধ ছিল। এর জেরে মারধরের ঘটনা ঘটেছে, ধর্ষণের ঘটনা ঘটেনি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com