সাংবাদিক নির্যাতনকরে কেউ রেহাই পায়নি আপনিও পাবেন না!

সাংবাদিক নির্যাতনকরে কেউ রেহাই পায়নি আপনিও পাবেন না!

বিএমএসএফ, ঢাকা: বিএমএসএফ’র কেন্দ্রীয় সদস্য শহিদুল ইসলামকে হত্যা মামলায় আসামী করায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বিএমএসএফ। আমরা ইতিমধ্যে জেনে গেছি ওখানকার একজন রাজনৈতিক নেতার ঈন্ধনে শহীদুলের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক এই হত্যা মামলায় তাকে ২নং আসামী করা হয়েছে। বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম ওই নেতার বিরুদ্ধে হুশিয়ারি উচ্চারন করে বলতে চায়, অবিলম্বে শহিদুলকে মামলা থেকে নি:শর্ত মুক্তি দিন। নইলে আপনার নাম উচ্চারন করে সারাদেশের সাংবাদিকরা একযোগে প্রতিবাদ সমাবেশ এবং আপনার কুশপুত্তলিকা দাহ করে আপনাকে দল থেকে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে বের করে দেয়ার সমস্ত প্রক্রিয়া আমাদের জানা আছে। বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর এক প্রতিবাদ বিবৃতিতে ওই নেতাকে এখনই থামার আহবান জানান।

ইতিপূর্ব আপনি আপনার চামচাদের দিয়ে শহীদুলকে প্রকাশ্যে গাছের সাথে বেঁধে বেধম মারধর ও নির্যাতন করেছিলেন। যার ফলে মহামান্য হাইকোর্ট স্বপ্রনোদিত হয়ে রুল জারী করেছিল। আপনি কথাটা বেমালুম ভুলে গেলেও এদেশের সাংবাদিকরা ন্যাক্কারজনক ঘটনাটি ভুলে যায়নি। তাইতো আপনি আবারো শহিদুলকে হয়রাণীর উদ্দেশ্যে নতুন মিশন হাতে নিয়ে একজন কলম সৈনিককে হত্যা মামলায় কাঠগোড়ায় দাঁড় করানোর আকাশ কুসুম স্বপ্ন দেখছেন।

 

আপনি রাজনৈতিক নেতা! আপনিার ক্ষমতার দৌড় সম্পর্কে সাংবাদিকরা জানেন। শহিদুলকে গাছের সাথে বেঁধে নির্যাতনকালীন সময় সাংবাদিক শহীদুলের দৌঁড় শুধু কালকিনিতেই সীমাবদ্ধ ছিল।

জেনে রাখুন, শহীদ এখন বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য। শহীদুলের বিরুদ্ধে আপনার নির্দেশে পুলিশকে পুঁজি করে ৫/৭টি মামলা করিয়েছেন। অতএব থামুন!!!! আপনাকে থামতেই হবে!!!!!!! নয়তো আমরা আপনাকে থামিয়ে দেবো, দাদা ভাই।

অতএব বুঝতেই পারছেন আপনি কী করবেন। আপনাকে ল্যাংটা করার সময় অপেক্ষা করছে। আমরা চাইনা আপনাকে উলঙ্গ করতে। আপনার নষ্ট পথ থেকে ফিরে আসুন। ফিরবেন কীনা একান্তই আপনার বিষয়।

উল্লেখ্য, মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলার বাঁশগাড়ি ইউনিয়নের আলআমিন ফকির হত্যা মামলায় আজ ১৪ মার্চ থানায় ২৬জনকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয় (নং ১৩)। এই মামলায় সাংবাদিক শহীদুল ইসলামকে ২নং আসামী করা হয়েছে। শহিদুল কালকিনি প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি এবং বিএমএসএফ কালকিনি কমিটির নির্বাহী সদস্য ও দৈনিক যায়যায়দিন’র কালকিনি প্রতিনিধি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com