মশা থেকে বাঁচাবে এই তিন গাছ

মশা থেকে বাঁচাবে এই তিন গাছ

মশা থেকে বাঁচাবে এই তিন গাছ
মশা থেকে বাঁচাবে এই তিন গাছ

জানা-অজানা ডেস্ক : মশার হাত থেকে বাঁচতে আমরা কত কিছুই না করি। নানা রকম মশার কয়েল, স্প্রে, ক্রিম, মশারি, তেল আরো কত আয়োজন। আসলে সেসব ব্যাপার মশা মারতে কামান দাগার মতো বিষয় হয়ে ওঠে। মানে সামান্য মশার হাত থেকে রক্ষা পেতে কাঁড়ি কাঁড়ি টাকা খরচ করতে হয় আমাদের। কিন্তু মশা তাড়াতে প্রকৃতির আশ্রয় নিলেই বাঁচবে টাকা আয় নানা আয়োজনের ঝামেলা।

এমন কিছু গাছ আছে যা ঘরে রাখলে মশা প্রবেশ করতে পারবে না একেবারেই। আর মশার যন্ত্রণা থেকেও থাকা যাবে নিশ্চিন্তে। আবার ঘরের মধ্যে সবুজের ছোঁয়া এনে দেবে অন্য রকম সৌন্দর্য। আসুন জেনে নিই মশার যন্ত্রণা কমাতে কোনো কোনো গাছ আমাদের সহায়তা করতে পারে।

গাঁদা

গাঁদা ফুলের গাছ ও ফুল সকলের নিকট অতি পরিচিত। বিভিন্ন উৎসব ও বিশেষ বিশেষ দিবসে এই ফুলের ব্যবহার লক্ষণীয়। তবে এই ফুলকে আরেকটি কাজে ব্যবহার করা যায়। যদি কোথাও মশার উপদ্রব বেড়ে যায় তবে এই ফুল গাছের টব সেখানে রাখলে মশা পালিয়ে যাবেই। ঘরের বিভিন্ন খোলা স্থান, যেমন দরজা, জানালা ইত্যাদির পাশে টব রেখে দিতে পারেন। তবে যারা ঘরে খরগোশ পোষেন তাদের জন্য গাঁদা ফুল না রাখাই ভালো হবে। কারণ গাঁদা ফুলের গন্ধ খরগোশের বেশ অপছন্দের।

তুলসী

তুলসী আমাদের সকলের পরিচিত চিরহরিৎ গুল্মজাতীয় উদ্ভিদ। আমাদের দেশ ও ভারতের প্রায় সর্বত্রই এই উদ্ভিদের দেখা মেলে। এই গাছ কীটপতঙ্গ নিবারক হিসেবে খুবই কার্যকরী। এর ঝাঁঝালো গন্ধের কারণে মশা ও মাছি কাছেই আসতে পারে না। তাই বিরক্তিকর মশা, মাছি থেকে নিজেকে মুক্ত রাখতে টবে অথবা বাগানের মাটিতে লাগাতে পারেন গাছটি। বাসার ভেতর রাখলেও বাসা থেকে মশা, মাছি দূরে পালিয়ে যাবে। তাছাড়া অবসরে, নিরিবিলি পরিবেশে বা বাগানে বসে বই পড়ার সময় পাশে তুলসী গাছ থাকলে বই পড়ায় আনন্দ পাবেন। কারণ এ সময় কোনো পতঙ্গ আপনাকে বিরক্ত করবে না।

মশা, মাছি তাড়াতে তুলসি পাতার স্প্রে-ও ব্যবহার করা হয়। স্প্রে তৈরির জন্য প্রথমে একটি পাত্রে ৪ আউন্স পরিমাণ গরম পানি নিতে হবে। সেখানে ৪ থেকে ৬ আউন্স পরিমাণ পরিষ্কার, তাজা তুলসী পাতা দিয়ে কয়েক ঘণ্টা রেখে দিতে হবে। তারপর তুলসীপাতা চিপে জলীয় অংশ বের করে নিতে হবে। পরে সেটি স্প্রে করতে হবে। স্প্রে ব্যবহারের সময় কিছু সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। চোখ, মুখ ও নাকে যেন স্প্রে না যায় সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।

পুদিনা

পেপারমিন্ট বা পুদিনা মুখের দুর্গন্ধ দূর করতে এবং খাবারের স্বাদ বাড়াতে বেশ সুপরিচিত। তবে মশা তাড়াতেও পুদিনা গাছের তীব্র গন্ধ অন্তত কার্যকর। ছোট পাত্র, টব ইত্যাদিতে পুদিনা গাছ রাখা যায়। তবে এ জন্য চাই আর্দ্র মাটি এবং ভালো পানি নিষ্কাশন ব্যবস্থা। সবুজ রঙের পুদিনা গাছ সরাসরি সূর্যের আলো থেকে দূরে রাখতে হবে। তবে কিছু জাত মৃদু ছায়াতেও বেড়ে উঠতে পারে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com