মধ্যরাতে লাঞ্ছিত ওয়ালিদ আশরাফ

মধ্যরাতে লাঞ্ছিত ওয়ালিদ আশরাফ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনের দাবিতে অনশন করা সেই ওয়ালিদ আশরাফকে স্মৃতি চিরন্তনে মধ্যরাতে লাঞ্ছিত করা হয়েছে। ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে তার সাইকেলে লাগিয়ে রাখা জাতীয় পতাকা। ‘স্বাধীনতা ০ কিলোমিটার’ লেখা মাইলফলকের অনুলিপি আর ‘চাই ৭২-এর সংবিধান’ লেখা ছোট বোর্ড ভেঙে ফেলা হয়েছে।

গতকাল বুধবার মধ্যরাতে এ ঘটনা ঘটে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসভবনের সামনে কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যরা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তবে কে বা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে, সেটা এখন পর্যন্ত জানা যায়নি।

ওয়ালিদ আশরাফ প্রথম আলোকে বলেন, অনশন ভাঙার পর থেকে তিনি মালিবাগের বাসা থেকে নিয়মিত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে আসেন। সাইকেল নিয়ে ডাকসুর বিষয়ে শিক্ষার্থীদের মধ্যে প্রচারণা চালান। খাতায় গণস্বাক্ষর সংগ্রহ করেন। প্রতিদিন রাত ৯টা থেকে ১২টা পর্যন্ত স্মৃতি চিরন্তনে (উপাচার্যের বাসভবনের সামনে) অবস্থান নেন। তিনি বলেন, ‘আমি রাতের কর্মসূচি শেষ করে ১২টার পরপরই জিনিসপত্র গোটাচ্ছিলাম। এমন সময় নীলক্ষেতের দিকে থেকে ছয়–সাতজন ছেলে এসে আমাকে ঘিরে ধরে। তারা আমার কাছে জানতে চায়, আমি বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মিত শিক্ষার্থী না, আমি কেন ডাকসু চাই। প্রতিদিন এখানে আসি কেন, জেরা করতে থাকে। ধাক্কা দিতে দিতে বলতে থাকে, তোরা ভিসির গায়ে হাত তোলস, কিসের আন্দোলন করস।’

ওয়ালিদের অভিযোগ, এ সময় লাঞ্ছনাকারীরা তাঁকে অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজ করে সেখান থেকে চলে যেতে বলে। কথা বলার সময় তারা সাইকেলে লাথি দিতে থাকে। একপর্যায়ে সাইকেলের সামনে টাঙানো জাতীয় পতাকা টেনে ছিঁড়ে মাটিতে ফেলে দেয়।

খবর পেয়ে রাত দেড়টার দিকে কয়েকজন সাংবাদিক ঘটনাস্থলে গেলে কাউকে পাওয়া যায়নি। সেখানে তখনো জাতীয় পতাকাটি পড়ে ছিল। উপাচার্যের বাসভবনের সামনে কর্তব্যরত পুলিশ সদস্যরা নিশ্চিত করেন, রাত ১২টার দিকে এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com