সংবাদ শিরোনাম :
ঠাকুরগাঁওয়ে পীরগঞ্জে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে বাড়িছাড়া হিন্দু পরিবার ঠাকুরগাঁওয়ে রাণীশংকৈলে ইয়াবাসহ দুই যুবক আটক হবিগঞ্জে শিকলে বেঁধে গৃহবধূকে নির্যাতনের ঘটনায় স্বামী ভিংরাজ গ্রেফতার হবিগঞ্জে বঙ্গবন্ধু কর্ণার উদ্বোধন হবিগঞ্জ শহরে মুন হাসপাতাল এবং চিকিৎসককে জরিমানা ঠাকুরগাঁওয়ে ধনীর মেয়েকে বিয়ে করার দায়ে গরিবের ছেলেকে গাছে বেধে নির্যাতন পর্তুগাল বিএনপির সভাপতি মাফিয়া ওলিউর দু’পুত্র ও সহোদর সহ পর্তুগাল পুলিশের খাঁচায় বন্দী হবিগঞ্জ বাহুবল উপজেলা চেয়ারম্যান খলিলুর রহমানের বিরুদ্ধে অভিযোগ তদন্তে বিভাগীয় কমিশনার ইসলামে দান-সদকার সওয়াব অপরিসীম ৬ ঘণ্টা নয়, ৪ ঘণ্টা বন্ধ থাকবে সিএনজি ফিলিং স্টেশন
বানিয়াচংয়ে মাদকের বিশাল সিন্ডিকেট দুই মাদকসেবী গ্রেফতার ।

বানিয়াচংয়ে মাদকের বিশাল সিন্ডিকেট দুই মাদকসেবী গ্রেফতার ।

বানিয়াচংয়ে মাদকের বিশাল সিন্ডিকেট দুই মাদকসেবী গ্রেফতার ।

মোঃ সনজব আলীঃ  হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে মদ খেয়ে মাতলামি করে জনসাধারনের শান্তি বিনষ্ট করার অপরাধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে ২যুবকের বিরুদ্ধে বানিয়াচং থানা পুলিশ মামলা দায়ের করেছে।

বানিয়াচং থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়,মঙ্গলবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় উপজেলার দত্তপাড়া পল্লীবিদ্যুৎ জোনাল অফিসের পাশ থেকে ২ যুবককে মাতাল অবস্থায় এলাকাবাসী আটক করে।

খবর পেয়ে বানিয়াচং থানা পুলিশ তোপখানা গ্রামের কবির হোসেনের পুত্র আলআমিন(৩০) ও দত্তপাড়া গ্রামের আলতাব হোসেনের পুত্র আফজাল হোসেন (২৪) কে মদ্যপ অবস্থায় আটক করে বানিয়াচং থানায় নিয়ে যায়।

পরবর্তীতে ওই দুজনকে ডাক্তারী পরীক্ষায় মাতাল হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে বানিয়াচং থানার এএসআই আ.ফ.ম ফিরোজ বাদী হয়ে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা দায়ের করেন।

মামলার প্রেক্ষিতে অভিযুক্তদেরকে কোর্টে প্রেরন করা হয়েছে।

বানিয়াচং থানা ইনচার্জ এমরান হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, এলাকাবাসীর নিকট থেকে খবর পেয়ে অভিযুক্ত ওই ২ যুবককে আটক করা হয়।পরবর্তীতে ডাক্তারী পরীক্ষায় নিশ্চিত হয়ে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

অন্য একটি সূত্র জানান এবং বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে অনুসন্ধানে এমন ভয়াবহ তথ্য পাওয়া যায়। বানিয়াচংয়ের চুরি-ডাকাতি,ছিনতাই ও জুয়াসহ বিভিন্ন অপরাধ মূলক ঘটনার মূল উৎস হচ্ছে ইয়াবা।

বানিয়াচং সদরে রয়েছে পুরাতন চিহ্নিত ইয়াবা ব্যাবসায়ী ও গডফাদার।আর এসব অপকর্মে তারা নিজেরা যেমন জড়িত এমনকি বিভিন্ন ইয়াবা সেবনকারী ও খুচরা ব্যাবসায়ী দ্ধারাতেও এমন কাজ করাচ্ছে এসব চক্র।

একমাত্র ইয়াবার টাকার জন্য ঐ এসব করে যাচ্ছে তাড়া।গত ১৭ সেপ্টেম্বর একটি পালসার মোটর সাইকেল চুরির ঘটনা ঘটে উপজেলার সামন থেকে এটাও চিহ্নিত ইয়াবা ব্যাবসায়ীদের নাম প্রকাশ হতে শুরু হয়েছে।এছাড়াও ৫ অক্টোবর একটি মোটর সাইকেল চুরির কথা বলে উদ্ধার করিয়েছে স্হানীয় শহীদ মিনার থেকে রাত সাড়ে ১২ টার দিকে থানার এস,আই কবির হুসেন।

বর্তমানে ৩ দিন হলেও আজ পর্যন্ত থানা থেকে মোটরসাইকেলটি আনা হয়নি।এমনকি কোন মালিক পক্ষই এখন পর্যন্ত যায়নি বলে জানায় থানার দারোগা এস,আই কবির হুসেন।

কিন্তু মোটর সাইকেলটি যাহার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছিল,সেই হোন্ডা মিকার সুজিত বলেছিল মোটর সাইকেলটি কাজ করার জন্য তার দোকানে ৩নং ইউপির ৩নং ওয়ার্ডের জাতুকর্ন পাড়া(মাইজের মহল্লার)মৃত ছইদ উল্বার পুত্র কুখ্যাত ডাকাত ও চিহ্নিত ইয়াবা ব্যাবসায়ী,সুদখোর জুয়ারী আলফুর বলে জানিয়েছিল।

এই মোটর সাইকেল সম্পর্কে ও ভয়াবহ তথ্য পাওয়া যায়।

এমনকি ১নং ইউপির সাইদুল হক,মনির,টিপু,সিদ্দিকসহ ওদের নিয়ত্রনে রয়েছে একটি খুচরা ইয়াবা ব্যাবসায়ীর একটি চক্র।

এছাড়া দীর্ঘদিনের আড়ালে থাকা চিহ্নিত ইয়াবা গডফাদার ৩নং ইউপির পায়েল জমাধার,জহিরুল ইসলাম মোহন,হুমায়ূন ঠাকুর,১নং ইউপির মোবাইল ব্যাবসায়ী ও চিহ্নিত ইয়াবা ব্যাবসায়ী জাহাঙ্গীর ও তুফাজ্জুল,সুবাজসহ বেশ কয়েকজন মিলে তারা নিয়ত্রন করছে একটি চক্র।

আর এসব বিশাল চক্রের দ্ধারাতেই বানিয়াচংয়ের বর্তমান সময়ের বিভিন্ন ধরনের অপরাধ মূলক ক্রাইম সংঘটিত হচ্ছে।

শুধু ২ জন মোহন ও হুমায়ুন ঠাকুর ছাড়া সবাই হবিগন্জ ডিবিসহ বিভিন্ন থানায় গ্রেফতার হয়েছে বহুবার।

শীঘ্রই এসবের বিরুদ্ধে ব্যাবস্হা নেওয়ার জন্য হবিগঞ্জ পুলিশ সুপার ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপারসহ বানিয়াচং থানা প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছেন সচেতন সমাজের নাগরিকবৃন্দ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com