নবীগঞ্জে কিশোরী ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা!

নবীগঞ্জে কিশোরী ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা!

নবীগঞ্জ প্রতিনিধি।। হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ পৌর এলাকার পূর্বতিমিরপুর গ্রামে প্রেমের নামে জনৈক দিনমজুরের ১৭ বছর বয়সী কিশোরী মেয়েকে বাড়িতে একা পেয়ে ৩ বার ধর্ষণ করেছে এক যুবক। ঘটনাটি ঘটেছে ২৭-১১-২০২০ ইং তারিখে। ধর্ষণের ফলে ওই কিশোরী ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা বলে অভিযোগ রয়েছে। গ্রাম্যমাতবরদের আশ্বাস আর সালিশে বিচার না পেয়ে অবশেষে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত করা হয়েছে একই গ্রামের আবুল কালাম খানের পুত্র আবুল হোসেন খান (২২) কে। সোমবার ৭ জুন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩,হবিগঞ্জে মামলাটি দায়ের করে ভুক্তভোগী কিশোরী। মামলার বিবরণে জানা গেছে, প্রায় ২ বছর ধরে জনৈক কিশোরী মেয়েকে বিভিন্ন প্রলোভন দিয়ে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিলো আবুল হোসেন খান। তবে তার প্রস্তাবে মেয়েটি কোনোভাবেই রাজি হয়নি। এ ঘটনার দিন কিশোরী মেয়ের পরিবারের লোকজন তাদের এক অসুস্থ আত্মীয়কে দেখতে যান। বাড়িতে শুধু ধর্ষণের শিকার ওই মেয়েটি ছিল। পুর্বের পরিচয় সুবাধে রাতের আধাঁরকে কাজে লাগাতে মনের বাসনা পূর্ন করতে আসে অভিযুক্ত যুবক। দরজার সামনে এসে ডাক দিলে পরিচিত গলার শব্দ শুনে মেয়েটি ঘরের দরজা খুলে দেয়া মাত্রই এই যুবক ধারালো অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ করে। এতে করে ওই মেয়েটি মানসিকভাবে ভেঙে পড়ে। পর্যায়ক্রমে বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করা হয়। এতে কিশোরী প্রায় ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা এখন। পরে এ ঘটনার জানাজানি হলে স্থানীয় কাউন্সিলরসহ গ্রাম্যমাতবররা বিষয়টি সমাধান করার চেষ্টা করেন। তবে আবুল হোসেন খানের লোকজন প্রভাবশালী হওয়ায় গ্রাম্য সালিশের ন্যায় বিচার থেকে বঞ্চিত করা হয় তাকে। ন্যায় বিচার পেতে ওই কিশোরী অবশেষে আদালতের দ্বারস্ত হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com