ড. কামালকে ধন্যবাদ দিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ

ড. কামালকে ধন্যবাদ দিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ

ড. কামালকে ধন্যবাদ দিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ
ড. কামালকে ধন্যবাদ দিলেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ

ঢাকা: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে জামায়াতকে অন্তর্ভুক্ত করা নিয়ে ফ্রন্টের প্রধান ড. কামাল হোসেনের বক্তব্যের জন্য তাকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক এবং তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

জামায়াতকে যদি বিএনপি পরিত্যাগ না করেন তাহলে ড. কামাল চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন বলেও আশা প্রকাশ করেন ড. হাছান মাহমুদ।

রোববার (১৩ জানুয়ারি) সচিবালয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা এবং দফতর প্রধানদের সঙ্গে মতবিনিময় সভার শুরুতে একথা বলেন।

শনিবার (১২ জানুয়ারি) রাজধানীতে গণফোরামের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে ড. কামাল বলেন, জামায়াতের সঙ্গে ঐক্য করে অনিচ্ছাকৃত ভুল হয়েছে। জামায়াতের সঙ্গে কখনও রাজনীতি করিনি, ভবিষ্যতেও করবো না। আমি যখন ঐক্যে সম্মতি দিয়েছি তখন জামায়াতের কথা আমার জানা ছিল না। এটা ঐক্যফ্রন্ট গঠনে ভুল ছিল। এছাড়াও তড়িঘড়ি করে ঐক্যফ্রন্ট গঠন করে যেসব ভুলত্রুটি হয়েছে তা সংশোধন করা হবে।

নতুন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান বলেন, আজকে যখন দেশ এগিয়ে যাচ্ছে তখন আমরা দেখতে পাচ্ছি একটি পক্ষ দেশ যাতে এগিয়ে না যায় সেজন্য পেছন থেকে টেনে ধরার চেষ্টা করছে।

তিনি বলেন, আমি ড. কামাল হোসেন সাহেবকে ধন্যবাদ জানাই, যে তিনি তার ভুলটি স্বীকার করেছেন গতকাল।

‘জামায়াতকে সঙ্গে নিয়ে নির্বাচন করাটা ভুল ছিল, তিনি সেই ভুল উপলব্ধি করতে পেরেছেন, এজন্য তাকে ধন্যবাদ জানাই।’

হাছান মাহমুদ বলেন, আমি আশা করবো, তারা যে ইতোমধ্যে একটা ভুল সিদ্ধান্ত নিয়ে বসে আছেন যে তাদের নির্বাচিত সংসদ সদস্যরা শপথ গ্রহণ করবে না। সেই ভুল সিদ্ধান্তটাও তারা পরিবর্তন করে গণতন্ত্রকে সংহত করার জন্য, গণতন্ত্রের অভিযাত্রাকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য জাতীয় সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ গ্রহণ করবেন এবং গণতন্ত্রের অভিযাত্রাকে সংহত করবে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, কামাল হোসেন সাহেবের এ স্বীকারোক্তিতে এটাই প্রমাণিত হয়, তারা যে রাজনীতিতে পদে পদে ভুল করছেন সেটি তিনি নিজেই স্বীকার করে নিয়েছেন। তারা যে জামায়াতকে সঙ্গে নিয়ে যে নির্বাচন করেছেন- এ ভুলটি স্বীকার করে করেছেন। এটির মাধ্যমে ড. কামাল হোসেন সাহেবসহ যারা জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট করেছেন, তারা যে রাজনীতির ক্ষেত্রে, নির্বাচনের ক্ষেত্রে পদে পদে ভুল করেছেন সেটি তারা স্বীকার করে নিয়েছেন।

‘এ ভুল স্বীকারোক্তির মাধ্যমে আমি মনে করবো তারা জামায়াতকে পরিত্যাগ করবেন এবং জামায়াতকে যদি বিএনপি পরিত্যাগ না করেন তাহলে তিনি চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবেন। সেটিই আশা করি।’

১০ শতাংশের কম থাকলে বিরোধীদলে থাকা যাবে না- এমন প্রশ্নে তথ্যমন্ত্রী বলেন, জাপা বিরোধীদলে থাকার জন্য চিঠি দিয়েছে। আমাদের সংবিধানে স্পষ্টভাবে লেখা নাই যে বিরোধীদলের মর্যাদা পেতে হলে ১০ শতাংশ আসন পেতে হবে, ভারতের সংবিধানে আছে।

মন্ত্রিসভা গঠনের পর সচিবালয়ে তথ্যমন্ত্রীর প্রথম এ সভায় তথ্য সচিব আবদুল মালেক এবং মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও বিভিন্ন দফতরের প্রধানগণ উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24

Desing & Developed BY ThemesBazar.Com