সংবাদ শিরোনাম :
লাখাইয়ে স্ত্রী ধর্ষণের অভিযোগে ইউপি সদস্য কারাগারে হবিগঞ্জ জেলায় নতুন করে ১৪ জনের শনাক্ত লাখাইয়ের বুল্লা বাজারে ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা আজমিরীগঞ্জে চোলাই মদসহ তরুণী আটক, ৩মাসের কারাদণ্ড মাধবপুরে পিতার সাথে অভিমান করে প্রবাসীর স্ত্রীর আত্মহত্যা নবীগঞ্জে ৭ জোড়া ডাকাতি মামলার আসামী আরশ পুলিশের খাঁচায় বন্ধী বানিয়াচংয়ে শরীফ উদ্দিন আহমদ এমপি‘র ২৪তম মৃত্যুবার্ষিকী পালন করা হয়েছে নেশার টাকা না দেওয়ায় মাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টায় ছেলেকে ৬ মাসের কারাদন্ড শায়েস্তাগঞ্জে মাদক বিরোধী বিশেষ অভিযানে ইয়াবা- চোলাইমদসহ গ্রেফতার ২ বাহুবলে ৪জনের কারাদণ্ড ২জনের জরিমানা
ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা দেয়ায় উপজেলা চেয়ারম্যানের কক্ষে ঢুকে মাদক ব্যবসায়ীদের হামলা!

ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা দেয়ায় উপজেলা চেয়ারম্যানের কক্ষে ঢুকে মাদক ব্যবসায়ীদের হামলা!

ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা দেয়ায় উপজেলা চেয়ারম্যানের কক্ষে ঢুকে মাদক ব্যবসায়ীদের হামলা!
ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা দেয়ায় উপজেলা চেয়ারম্যানের কক্ষে ঢুকে মাদক ব্যবসায়ীদের হামলা!

ক্রাইম ডেস্কঃ রাজশাহীর তানোর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের কক্ষেই মাদক ব্যবসায়ীর হামলায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের অফিস সহায়ক আরিফ উর রহমানকে শারিরীকভাবে লাঞ্চিত ও আহত করা হয়েছে। এছাড়া মাদক ব্যবসায়ীকে পালিয়ে যেতে সহায়তা ও সরকারি কাজে বাধা প্রদানের অভিযোগে নারীসহ দুই জনকে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়। এ ঘটনায় অফিস সহায়ক আরিফ উর রহমান ১০জনকে আসামী করে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তানোর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

মাদক ব্যবসায়ীকে পালিয়ে যেতে সহায়তা ও সরকারি কাজে বাধা প্রদানের অভিযোগে দুই মাস কারাদন্ড প্রাপ্ত হলো, তানোর পৌর এলাকার ঠাকুরপুকুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের স্ত্রী শম্পা খাতুন, এক মাসের কারাদন্ড প্রাপ্ত আসামী একই গ্রামের টিটু মিয়ার পুত্র শাহীন মিয়া (২০) ও ছয়মাস কারাদন্ড প্রাপ্ত মাদকসেবী মোহনপুর উপজেলার খয়রারমোড় গ্রামের তৌফিক ইসলামের পুত্র সাদ্দাম হোসেন (২৮)।

পুলিশ ও মামলা সূত্রে জানা যায়, সকালে দুই মাদকসেবী উপজেলার চত্বরে পরিত্যক্ত ঘরে মাদক সেবন করছিল। তখন অফিস সহায়ক আরিফ তা দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেন। পুলিশের অবস্থান টের পেয়ে একজন পালিয়ে গেলে একজনকে হাতেনাতে আটক করা হয়। আটককৃতদের তথ্য মতে ঠাকুরপুকুর গ্রামে মাদক ব্যবসায়ী হক সাহেবকে ইয়াবা বিক্রির সময় হাতে-নাতে আটক করেন। এসময় তার স্ত্রীর চিৎকারে শম্পা ও শাহীন এগিয়ে এলে সুকৌশলে ছুটে পালিয়ে যায় মাদক ব্যবসায়ী হক। ওই সময় শম্পা ও শাহীনকে সরকারী কাজে বাধা প্রদানের অভিযোগে আটক করা হয়। পরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহাঃ শওকাত আলী ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে কারাদন্ড দেন।
এরপর দুপুর দুইটার দিকে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের কক্ষে হকসাহেবের স্ত্রী রওশন আরা (৫০), তার পুত্র মতিউর রহমান (৩০), মেয়ে সাবিনা, (৩৫), আরেক মেয়ে ডলি আরা (৩২)সহ ১০জন একত্রে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের কক্ষে এসে আরিফ-উর-রহমানকে শারিরীকভাবে লাঞ্চিত করেন। এক পর্যায়ে তাকে মারধোর করতে করতে আহত অবস্থায় হত্যার হুমকি দিয়ে পালিয়ে যায়।

এ নিয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মনিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আটককৃত তিনজনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে। আজ শুক্রবার সকালে তিনজনকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হবে। এছাড়া মারধরের অভিযোগে মামলার আসামীদের ধরতে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24

Desing & Developed BY ThemesBazar.Com