কর্ণফুলীর দুই হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ তিন ধাপে

কর্ণফুলীর দুই হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ তিন ধাপে

কর্ণফুলীর দুই হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ তিন ধাপে
কর্ণফুলীর দুই হাজার স্থাপনা উচ্ছেদ তিন ধাপে

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম: চট্টগ্রামের ঐতিহ্যের নদী কর্ণফুলীকে রক্ষায় এর তীরে অবৈধভাবে গড়ে উঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ শুরু হয়েছে গতকাল সোমবার থেকে। মঙ্গলবার দ্বিতীয় দিনের মতো উচ্ছেদ অভিযান চলছে।

এই নদী রক্ষায় তিন ধাপে প্রায় দুই হাজারের বেশি স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে বলে নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মোঃ ইলিয়াস হোসেন।

তিনি জানান, কোন প্রভাবশালী কিংবা কারো হুমকি-ধমকির কাছে প্রশাসন মাথা নত করবে না।

জেলা প্রশাসক বলেন, ‘অলরেডি বেশ কয়েকটি জায়গা থেকে হুমকি-ধমকি এসেছে। উচ্ছেদকারী ম্যাজিস্ট্রেট যারা, তাদেরকেও হুমকি দিয়েছে। আমরা সেই হুমকিতে বিচলিত নই। আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আমরা দেশকে ভালোবাসি। আমাদের নদী বাঁচাতে হবে, দেশকে বাঁচাতে হবে। যে যতই প্রভাবশালী ব্যক্তি হোক না কেন, আমরা কোনোমতেই কাউকে ছাড় দেবো না।’

উচ্ছেদ অভিযানে নেতৃত্ব দেওয়া চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তাহমিলুর রহমান মুক্ত রাইজিংবিডিকে জানান, সোমবার সকাল থেকে শুরু হওয়া অভিযানে প্রথম দিনে অর্ধশতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে সরকারি প্রায় ৪ একরেরও বেশি জমি উদ্ধার করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল থেকে দ্বিতীয় দিনের মতো অভিযান শুরু হয়েছে।

মুক্ত জানান, প্রথম ধাপে নগরীর বারিক বিল্ডিং মোড় থেকে সদরঘাট পর্যন্ত দুই শতাধিক স্থাপনা চিহ্নিত করে সেগুলো উচ্ছেদ শুরু হয়েছে। এই সব স্থাপনা উচ্ছেদে যতদিন লাগবে ততদিন অভিযান চলবে। পুরোপুরি কর্ণফুলী নদীর তীর দখলমুক্ত না হওয়া পর্যন্ত অভিযানে অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন ম্যাজিস্ট্রেট।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24

 
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com