সংবাদ শিরোনাম :
দশ টাকায় টিকিট কেটে চক্ষু পরীক্ষা করালেন প্রধানমন্ত্রী বাহুবলে বেকারিতে অনুমোদনবিহীন বিএসটিআই লোগো ব্যবহার ২৫ হাজার টাকা অর্থদন্ড প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের ফল ১৪ ডিসেম্বর হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে মাদরাসা ছাত্রীর মৃত্যু হবিগঞ্জ এসে পৌঁছেছে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া শীতবস্ত্র হাওর থেকে নামছে না পানি, বীজতলা তৈরি নিয়ে শঙ্কা সিলেট বোর্ডে পাসের হার কমেছে ১৭.৯৬ শতাংশ, ফেল বেশি মানবিকে : হবিগঞ্জে পাশের হার ৭৭ দশমিক ৮৬ শতাংশ নবীগঞ্জ উপজেলা মাসিক আইনশৃঙ্খলা কমিটির  সভা অনুষ্ঠিত  মাধবপুরে নবাগত ইউএনওর মতবিনিময় সভা  মৎস্য কর্মকর্তার ডিজিটাল আইনের মামলায় দুই সাংবাদিকের জামিন মঞ্জুর
আজমিরীগঞ্জে যুবককে ‘এইডস’ রোগী বানালো মেডিল্যাবের ভুল রিপোর্ট

আজমিরীগঞ্জে যুবককে ‘এইডস’ রোগী বানালো মেডিল্যাবের ভুল রিপোর্ট

স্টাফ রিপোর্টার : সুনামগঞ্জের শাল্লা উপজেলার মৃধা গ্রামের বাসিন্দা রাজা মিয়ার পুত্র  রেজুয়ান মিয়া (৩০) । গত ২৩ অক্টোবর হবিগঞ্জের আজমিরীগঞ্জ পৌরসভার মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সে অবস্থিত মেডিল্যাব হাসপাতালে এসেছিলেন একজন রোগীকে রক্তদান করতে। যথারীতি রক্তদানের পুর্বে মেডিল্যাব হাসপাতালের প্যাথলজি বিভাগে রক্তের স্যাম্পল দেন তিনি। ঘন্টাখানেক পর রিপোর্ট হাতে দিয়ে রেজুয়ানকে জানানো হয় তিনি এইচআইভি পজেটিভ। মুহুর্তেই আকাশ ভেঙ্গে পড়ে রেজুয়ান মিয়ার মাথায়। সেখান থেকে বাড়িতে ফিরে মানসিক ভাবে অসুস্থ পড়েন তিনি। সোমবার (২৪ অক্টোবর) সকালে বন্ধুকে জানান বিষয়টি। বন্ধুর মারফত পরিবারের লোকজন বিষয়টি জানতে পেরে একইদিন হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে যান রেজুয়ানকে। হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতালের প্যাথলজিতে এইচআইভির রিপোর্ট নেগেটিভ আসে রেজুয়ানের। এতে রেজুয়ান মানসিকভাবে  হন কিছুটা আশ্বস্ত ও তবুও কি মনের সন্দেহ দূর হয় ? মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) সকালে রওনা দেন সিলেটের উদ্দেশে। বিকালে সিলেটের ইবনে সিনা হাসপাতালের প্যাথলজি বিভাগে  আবারও রক্ত পরীক্ষা করান রেজুয়ান। সেখানেও তার এইচআইভি রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। বুধবার (২৬ অক্টোবর) দুপুরে রেজুয়ান মিয়ার অভিভাবকসহ কয়েকজন মেডিল্যাব হাসপাতালে আসেন।  হাসপাতালে আসার পর কর্তৃপক্ষের সাথে বাকবিতন্ডা শুরু হয় তাদে।  একপর্যায়ে আর্থিক লেনদেনে বিষয়টি শেষ হয় । যদিও আর্থিক রফাদফার বিষয়টি অস্বীকার করেন রেজুয়ানের অভিভাবক। এ বিষয়ে রেজুয়ান মিয়া বলেন, ‘আমি ২৩ অক্টোবর একজনকে রক্তদান করতে মেডিল্যাব হাসপাতালে যাই। সেখানে আমার রক্ত পরিক্ষা করে আমাকে ভুল রিপোর্ট দিয়ে জানায়  আমার এইচআইভি পজেটিভ। পরে আমি হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে এবং সিলেটের ইবনে সিনা হাসপাতালে দুই বার পরিক্ষা করে জানতে পারি আমি এইচআইভি পজেটিভ নই। এ বিষয়ে মেডিল্যাব হাসপাতালের ম্যানেজার আশরাফুল ইসলাম জানান- বিষয়টি হয়তো ভুলে হয়েছে। আমাদের টেকনিশায়ন বলেছিলো বড় মেশিনে পরিক্ষা করতে। তিনি তা করেননি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

কপিরাইট © 2017 Lokaloy24
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com